বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

এক বছর, দুই বছর, দেখতে দেখতে বাচ্চার স্কুল যাওয়ার দিনটাও চলে এলো। ভাবছেন, কীভাবে একরত্তি সামাল দেবে সবটা? মা-বাবার গণ্ডি ছাড়িয়ে কীভাবে মানিয়ে নেবে বাইরের জগতে? চিন্তার আসলে কিছুই নেই। কিছু প্লে-স্কুল আছে, যারা প্রাথমিক স্কুলের আদবকায়দার জন্য় তৈরি করে দেয় বাচ্চাকে। তা যদি না হয়, আপনি নিজেই বাড়িতে প্রশিক্ষণ দিতে পারেন ওকে। কীভাবে, বলে দিচ্ছি আমরা।Learn how to prepare your kid for school in these simple steps.

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

#1. স্কুলজীবন নিয়ে কথা (Talk about school life)বাচ্চার সঙ্গে নিজের স্কুলজীবনের কথা ভাগ করে নিন। স্কুলের কটা বছর কতটা মজার আর কতটা গুরুত্বপূর্ণ, সবটার একটা আঁচ দিন ওকে। দরকারে স্কুল শুরুর আগেই ওকে নিয়ে কয়েকবার স্কুলে ঘুরিয়ে আনুন। ক্লাসরুম কী, ওয়াশরুম কোথায়, আসা-যাওয়ার বাস কোথায় দাঁড়াবে– চিনিয়ে দিন ওকে। বাচ্চার মনে কোনও প্রশ্ন জাগলে, তার উত্তর দিন। নতুন পরিবেশে মানিয়ে নিতে খোলামেলা এই গল্পই অনেকটা সাহায্য করবে ওকে।

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

#2. স্কুলের জিনিসপত্র কেনা (Buying school supplies)স্কুল শুরুর দিন মোটামুটি ঠিক। এবার জিনিসপত্তর কেনার পালা। মা-বাবা নিজেই গিয়ে সব কিনবেন না। বই কেনা থেকে শুরু করে ব্য়াগের রং পছন্দ–বাচ্চাকে সঙ্গে নিয়েই পুরো কেনাকাটি সারুন। এতে নতুন জিনিসগুলোর প্রতি ওর আগ্রহ তৈরি হবে। এর থেকে স্কুলে যেতেও আগ্রহী হবে ও।

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

#3.বন্ধুত্বের শিক্ষা (Friendship lessons)স্কুলজীবনটা যাতে আর পাঁচটা বাচ্চার মতোই সবচেয়ে সেরা হয়, বাচ্চাকে তাই স্কুলে গিয়ে নতুন নতুন বন্ধু বানানোর পরামর্শ দিন। আমাদের জীবন থেকেই প্রমাণিত, অধিকাংশ ক্ষেত্রে স্কুলের বন্ধুরাই সারা জীবনের বন্ধু হয়ে থেকে যায়। বন্ধুর সঙ্গে টিফিন ভাগ করে খাওয়া, খেলাধূলা, খেলনা ভাগ করে নেওয়া বাচ্চাকে অনেক বেশি সামাজিকতার শিক্ষা দেবে।

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

#4. শৃঙ্খলার অভ্য়াস (Discipline)স্কুলজীবন মানেই অত্যন্ত শৃঙ্খলাবদ্ধ এক জীবনের শুরু। বাড়ির আদর-আহ্লাদ, ইচ্ছে মতো চলার পরিবেশ থেকে হঠ করে নিয়ম মেনে চলার ফতোয়ায় বাচ্চার যাতে অসুবিধা না হয়, তার জন্য় ওকে তৈরি করুন আগে থেকেই। স্কুল শুরুর অন্তত একমাস আগে থেকে বাচ্চা কখন ঘুমাবে, কখন উঠবে, কতক্ষণ টিভি দেখবে, কতক্ষণ পড়বে তার রুটিন বেঁধে দিন।

বাজল স্কুলের ঘণ্টা, বাচ্চার জন্য পাঁচটি টোটকা

#5. সুরক্ষার শিক্ষা (Safety lessons)অচেনা পরিবেশে কী কী বিপদ হতে পারে, তার একটা আভাস দিয়ে রাখুন বাচ্চাকে। হয়তো বড় কেউ, বা ওরই বয়সি কেউ কোনও ক্ষতি করার চেষ্টা করছে, মোকাবিলায় আপনার বাচ্চা কী করবে, শিখিয়ে রাখুন ওকে। পাশাপাশি কোনও অবস্থাতেই যাতে সে স্কুলচত্বর না ছাড়ে, তা বলে দিন। একা একা রাস্তাঘাটে ঘোরাফেরাও কতটা বিপজ্জনক, জানিয়ে রাখুন ওকে।